সংসদের বাইরে প্রতিবাদ বিরোধীদের, অনির্দিষ্টকালের জন্য মুলতুবি রাজ্যসভা

নিউজটাইম ওয়েবডেস্ক : কৃষি বিল ঘিরে বিরোধীদের প্রতিবাদ-বিক্ষোভের আবহেই অনির্দিষ্টকালেরর জন্য় মুলতুবি হয়ে গেল রাজ্য়সভার অধিবেশন। এদিকে, কৃষি বিলের বিরোধিতা জানিয়ে আজই রাইসিনা হিলে যাচ্ছেন বিরোধী দলের নেতারা। সম্ভবত আজ বিকেল ৫টায় এ ইস্য়ুতে রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দের সঙ্গে দেখা করবে বিরোধী পক্ষ। বিতর্কিত বিলগুলিতে সই না করতে রাষ্ট্রপতিকে ইতিমধ্য়েই চিঠি লিখেছে বিরোধী শিবির।

উল্লেখ্য়, রবিবার তুমুল বিরোধিতার আবহে রাজ্য়সভায় ধ্বনি ভোটে পাস করা হয় দুটি বিতর্কিত বিল। একটি হল, কৃষিপণ্য়ের লেনদেন ও বাণিজ্য় উন্নয়ন ও আরেকটি হল, কৃষিপণ্য়ের দাম নিশ্চিত করতে কৃষকদের সুরক্ষা ও ক্ষমতায়ন চুক্তি সংক্রান্ত বিল। বিরোধী শিবিরের তুমুল আপত্তি, প্রতিবাদ, হই-হট্টগোলের মধ্য়েই রাজ্য়সভায় পাস হয়ে যায় বিলগুলি।

বিল পাসের প্রতিবাদ ঘিরে রাজ্য়সভায় তুলকালাম কাণ্ড বাধে। এর জেরে সোমবার সাসপেন্ড করা হয় তৃণমূলের ডেরেক ও’ব্রায়েন, দোলা সেন, কংগ্রেসের রাজীব সাতভ, সৈয়দ নাসির হুসেন, রিপুন বোরা, আম আদমি পার্টির সঞ্জয় সিং, সিপিএমের কে কে রাগেশ ও ই করিমকে। এরপরই সংসদে গান্ধী মূর্তির পাদদেশে রাতভর ধর্নায় বসেন তৃণমূলের ডেরেক ও’ব্রায়েন , দোলা সেন-সহ সাসপেন্ড হওয়া সাংসদরা।

জিরো আওয়ারে মঙ্গলবার রাজ্য়সভার বিরোধী দলনেতা গুলাম নবি আজাদ বলেন, সাংসদদের সাসপেনশন প্রত্য়াহারের পাশাপাশি আরও ২ টি দাবি রয়েছে। এক, ন্য়ূনতম সহায়ক মূল্য়ের কমে কৃষকদের থেকে কৃষি পণ্য় কিনতে পারবে না বেসরকারি সংস্থা। দুই, স্বামীনাথন কমিশনের সুপারিশ মেনে ন্য়ূনতম সহায়ক মূল্য় ঠিক করতে হবে।

৮ সাংসদের সাসপেনশন ইস্য়ুতে সংবাদসংস্থা পিটিআই-কে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী রবিশংকর প্রসাদ বলেন, রাজ্য়সভায় ৮ জন সাংসদের সাসপেনশন প্রত্য়াহারের বিষয়টি তখনই বিবেচনা করবে সরকার, যখন তাঁরা তাঁদের আচরণের জন্য় ক্ষমা চাইবেন।

Inform others ?
Show Buttons
Hide Buttons