দুষ্কৃতীদের রুখতে মুম্বইয়ের পর এবার আসানসোল স্টেশনে বসতে চলেছে ফেস স্ক্যানার

নিউজটাইম ওয়েবডেস্ক : দুষ্কৃতীদের ওপর নজরদারি করতে মুম্বইয়ের পর এবার আসানসোলের রেল স্টেশনেও বসতে চলেছে ফেস স্ক্যানার। আসানসোলের পর দুর্গাপুরেও এই ‌যন্ত্র বসানো হবে বলে জানা গিয়েছে।

রবিবার আসানসোল ডিভিশনের আরপিএফ-এর সিনিয়র সিকিউরিটি কমিশনার চন্দ্রমোহন মিশ্র জানিয়েছেন,  স্টেশনে এই ‌যন্ত্র বসানোর জন্য আগেই দরপত্র ডেকেছিল রেল। এবার তার ভিত্তিতে এক বছরের মধ্যেই আসানসোল স্টেশনে ফেস স্ক্যানার ‌যন্ত্র বসানোর কাজ শুরু হবে। আসানসোলের পর ওই যন্ত্র বসবে দুর্গাপুরেও।

দুষ্কৃতীদের গা ঢাকা দেওয়ার ক্ষেত্রে রালপথের ব্যবহার সবথেকে বেশি। তাছাড়া দুরপাল্লার ট্রেনে ডাকাতি ও ছিনতাইয়ের মতো অপরাধে যুক্ত থাকে বহু দুষ্কৃতী। তাই রেলপথে নিরাপত্তা আরও বৃদ্ধি করতে বিভিন্ন রেল স্টেশনে ফেস স্ক্যানার ‌যন্ত্র বসানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে ভারতীয় রেল কর্তৃপক্ষ। ইতিমধ্যে মুম্বইয়ে বসানো হয়েছে এই ‌ফেস স্ক্যানার। এবার সে পথে হেঁটে আসানসোলেও বসতে চলেছে এই বিশেষ ‌যন্ত্র। এবিষয়ে সিনিয়র সিকিউরিটি কমিশনার বলেন, ‘ইতিমধ্যে আমরা আসানসোল ডিভিশনের ঝাড়খণ্ড, বিহার এবং পশ্চিমবঙ্গে বিভিন্ন ক্ষেত্রে অপরাধজগতে নাম তোলা ৩০০ অপরাধীর ছবি সংগ্রহ করেছি। এ ছাড়া এই রাজ্যগুলো ছাড়াও উত্তরপ্রদেশ, ওডিশা রাজ্য পুলিশ এবং রেল পুলিশের কাছে কুখ্যাত দুষ্কৃতীদের ছবি চেয়ে পাঠিয়েছি। পরবর্তী ক্ষেত্রে উত্তর-পূর্ব ভারতের রাজ্যগুলোর কাছে থেকেও এমন ছবি চাওয়া হবে।’

তবে এই স্ক্যানার মেশিন বসানোর জন্য হঠাৎ করে কেন বেছে নেওয়া হল আসানসোল স্টেশনকে? এবিষয়ে চন্দ্রমোহন মিশ্র বলেন, ‘ভারতীয় রেলে আসানসোল নানা কারণে গুরুত্বপূর্ণ। এই স্টেশন একদিকে বিহার এবং ঝাড়খণ্ডের সীমানা। অন্য দিকে, পূর্ব ভারতের মালদা, জলপাইগুড়ির সঙ্গে এই ডিভিশনের যোগ সিউড়ি পর্যন্ত। এই ডিভিশনকে আনেক ক্ষেত্রে করিডর হিসেবে বেছে নিতে দেখা গিয়েছে অপরাধীদের। আর করিডোর হিসেবে আসানসোল স্টেশনকে ব্যবহার করা হয়।’ একই সাথে এদিন একটি উদাহরন টেনে চন্দ্রমোহন বাবু বলেন, ‘আমরা কিছুদিন আগেই দেখেছি, আসানসোল স্টেশন থেকে চার দুষ্কৃতী বেরিয়ে পুলিশকে লক্ষ করে গুলি করেছিল। স্টেশনের সিসিটিভি ফুটেজ থেকেই তাদের শনাক্ত করে গ্রেপ্তার করা হয়। জানা যায়, তারা ঝাড়খণ্ড ও বিহারে কুখ্যাত দুষ্কৃতী হিসেবে মোস্ট ওয়ান্টেড তালিকায় ছিল।’ আর ঠিক সেকারনেই এবার ফেস স্ক্যানার ‌যন্ত্র বসানোর জন্য আসানসোল স্টেশনকেই বেছে নিয়েছে ভারতীয় রেল।   

 

Inform others ?
Show Buttons
Hide Buttons