৫৯ টি চিনা অ্যাপ নিষিদ্ধ করার সিদ্ধান্তে উদ্বিগ্ন চিন

নিউজটাইম ওয়েবডেস্ক : ৫৯টি চিনা অ্যাপ ব্যবহারে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। অবশেষে ভারতের এই সিদ্ধান্ত নিয়ে মুখ খুলল চিন। সংবাদ সংস্থা রয়টার্সের খবর অনুসারে বেজিং দিল্লির এই পদক্ষেপে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে। পরিস্থিতি খতিয়ে দেখার কথাও বলা হয়েছে।

সোমবার টিকটক, শেয়ারইট, ইউসি ব্রাউজারের মতো জনপ্রিয় ৫৯টি চিনা অ্যাপ নিষিদ্ধ করেছে তথ্য-প্রযুক্তি মন্ত্রক। ওই অ্যাপগুলি ‘দেশের সার্বভৌমত্ব, অখণ্ডতা, দেশের সুরক্ষার জন্য ক্ষতিকারক। সেকারণেই ওই অ্যাপগুলিকে নিষিদ্ধ করা হয়েছে’ বলে জানিয়েছে মন্ত্রক। দেশের তথ্য প্রযুক্তি আইনের ৬৯-এ ধারায় অ্যাপগুলি নিষিদ্ধ করা হয়েছে। সীমান্ত উত্তেজনার আবহে চিনের বিরুদ্ধে দিল্লির এই পদক্ষেপকে ‘ভার্চুয়াল স্ট্রাইক’ বলে দেখা হচ্ছে।

মন্ত্রকের তরফে জানানো হয়েছে, ১৩০ কোটি ভারতবাসীর তথ্য সুরক্ষিত রাখার প্রশ্নে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। অ্যান্ড্রয়েড ও আইওএস প্ল্যাটফর্মে মোবাইল অ্যাপকে অপব্যবহার করে গ্রাহকদের তথ্য চুরি করা হচ্ছে বলে বেশ কিছু অভিযোগ জমা পড়েছিল তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রকে। এরপরই এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় বলে জানা যাচ্ছে। তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রকের মুখপাত্র জানিয়েছেন, যারা ইতিমধ্যেই এইসব অ্যাপ ডাউনলোড করেছেন নিষেধাজ্ঞার পর তাদের কাছে আর আপডেটস আসবে না। ইন্টারনেট প্রোভাইডারদেরও এইসব প্ল্যাটফর্ম ব্লক করার নির্দেশ দেওয়া হবে। গুগল প্লে স্টোর এবং অ্যাপলের অ্যাপ স্টোরকে ব্লক করা অ্যাপগুলি সরানোর জন্য ইতিমধ্যেই নির্দেশ দিয়েছে তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রক।

সীমান্ত উত্তেজনা প্রশমণে মঙ্গলবার বৈঠকে বসেছে দু’দেশের সেনা কর্তারা। তার আগেই দিল্লির পদক্ষেপে যে জোড়াল ধাক্কা লাগার আশঙ্কা করছে চিন, তা বেজিং-এর প্রতিক্রিয়াতে স্পষ্ট।

 

Inform others ?
Show Buttons
Hide Buttons