বিদেশে আটকে থাকা ১৪,৮০০ জন ভারতীয়কে ফেরানো হবে, জানাল কেন্দ্র

নিউজটাইম ওয়েবডেস্ক : করোনা সঙ্কটের জেরে হাজার হাজার ভারতীয় আটকে রয়েছেন বিভিন্ন দেশে। আগামী বৃহস্পতিবার থেকে বিশেষ বিমানে তাঁদের ফিরিয়ে আনা হবে দেশে।এমনই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন কেন্দ্রীয় সরকার। প্রথম সপ্তাহে ১৩টি দেশ থেকে ১৪,৮০০ ভারতীয়কে ৬৪টি বিমানে দেশে ফেরানো হবে বলে জানিয়েছে বিদেশ মন্ত্রক। স্বাধীনতার পর থেকে এত বেশি সংখ্যক বিদেশে বসবাসকারী ভারতীয়কে একসঙ্গে দেশে ফিরিয়ে আনা হচ্ছে। এছাড়াও ভারতীয় নৌসেনার তিনটি জাহাজে পশ্চিম এশিয়া ও মালদ্বীপে আটক ভারতীয়দেরও ফিরিয়ে আনা হবে।

দেখে নেওয়া যাক গুরুত্বপূর্ণ  তথ্য::

>সংবাদ সংস্থা এএনআই সূত্রে জানা গিয়েছে প্রথম দিন ২,৩০০ ভারতীয়কে ফেরাতে মোট ১০টি উড়ান বিভিন্ন দেশে পৌঁছবে।

 >যে যে দেশে যাবে ভারতীয় বিমানগুলি, সেগুলি হল আমেরিকা, ফিলিপিন্স, সিঙ্গাপুর, বাংলাদেশ, সংযুক্ত আরব আমিরশাহি, সৌদি আরব, ব্রিটেন, কাতার, ওমান, বাহরিন ও কুয়েত।

>পরিকল্পনা অনুযায়ী, দ্বিতীয় দিন ২,০৫০ ভারতীয় চেন্নাই, কোচি, মুম্বই, আহমেদাবাদ, বেঙ্গালুরু ও দিল্লিতে পৌঁছবেন ন’টি দেশ থেকে। 

>পরের দিন সমসংখ্যক ভারতীয় মধ্য প্রাচ্য, ইউরোপ, দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া ও আমেরিকার ১৩টি দেশ থেকে মুম্বই, কোচি, লখনউ ও দিল্লিতে পৌঁছবেন। 

>পরিকল্পনা অনুযায়ী চতুর্থ দিন আমেরিকা, ব্রিটেন, সংযুক্ত আরব আমিরশাহি সহ আটটি দেশ থেকে ১,৮৫০ জন ফিরবেন। 

>উড়ানগুলিতে ২০০ থেকে ৩০০ যাত্রী থাকবেন। সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে বিমানে বসতে হবে যাত্রীদের। বিশেষ বিমানে ওঠার আগে যাত্রীদের জানাতে হবে তাঁদের সর্দিকাশি, শ্বাসকষ্ট বা প্রবল জ্বরের মতো উপসর্গ নেই। 

>কেবলমাত্র করোনার লক্ষণবিহীন যাত্রীদেরই বিমানে উঠতে দেওয়া হবে বলে সরকারের তরফে জানানো হয়েছে। 

>আইএনএস জলস্ব সহ নৌসেনার তিনটি জাহাজ ফিরিয়ে আনবে ১,০০০ ভারতীয়কে। 

>আইএনএস শার্দুল, আইএনএস মগর জাহাজ দু’টিকেও ব্যবহার করা হবে। সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার কারণে ৩০০-র বেশি যাত্রী তারা বহন করতে পারবেন না। 

>গত মার্চের শেষ সপ্তাহ থেকে ভারতে সমস্ত আন্তর্জাতিক বিমানের উড়ান নিষিদ্ধ করা হয়। দেশব্যাপী জারি হয় লকডাউন। এর ফলে বিদেশে থাকা বহু ভারতীয়কে সেখানেই আটকে থাকতে হয়েছে। 

Inform others ?
Show Buttons
Hide Buttons