হোটেল ও লজে আইসোলেশন সেন্টার, বড়সড় সিদ্ধান্ত রাজ্য সরকারের

নিউজটাইম ওয়েবডেস্ক : করোনা আতঙ্ক থেকে দেশবাসীকে মুক্ত করতে প্রশাসনের তরফে একাধিক সতর্কবার্তা জারি করা হয়েছে। তবে এবার সরকারের পাশাপাশি করোনা সংক্রমণ রুখতে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিলেন নাগরিক সচেতন মানুষ৷ শনিবার রাতেই কর্নাটক সরকারের তরফে বেশ কয়েকটি হোটেল ও লজকে মাস কোয়ারেন্টাইন সেন্টার করার কথা ঘোষনা করা হয়েছে। এই হোম কোয়ারেন্টাইনে রাজ্যের প্রায় ৩,১৭৫ জনকে রাখা হবে বলে জানানো হয়েছে। কর্নাটক সরকার তরফে ইতিমধ্যেই বেঙ্গালুরু শহরের প্রতিটি ব্যক্তিতে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। তবে এই শহরে যাদের থাকার কোন জায়গা নেই তাঁদের জন্য সরকার মাস কোয়ারেন্টাইনের ব্যবস্থা করেছে।

রাজ্যের হেলথ ও ফ্যামিলি ওয়েলফেয়ার ডিপার্টমেন্টের কমিশনার পঙ্কজ কুমার পাণ্ডে এবিষয়ে বলেন, ‘শহরের প্রত্যোকটি মানুষকে হোমে কোয়ারেন্টাইনে থাকার জন্য অনুরোধ করা হয়েছে৷ কিন্তু যাঁদের বেঙ্গালুরুতে বাড়ি নেই,  তাঁদের হোটেল, লজ এবং হস্টেলের মতো জায়গা মাস কোয়ারেন্টাইনের ব্যবস্থা করেছে রাজ্যের হেলথ ও ফ্যামিলি ওয়েলফেয়ার দফতর৷’

করোনা ভাইরাসের জেরে রাজ্যের এমন অবস্থা যে, রবিবার রাজ্যের ৯টি জেলার লক-ডাউন করার সিদ্ধান্ত কর্নাটক সরকারের৷ তবে বেশ কিছু জরুরি পরিষেবা এই লক-ডাউনের আওতার বাইরে থাকবে বলেও জানানো হয়েছে। এখনও পর্যন্ত সেরাজ্যে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ২১। মৃত এক। ভারতে প্রথম এরাজ্যেই করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ৭৬ বছরের এক বৃদ্ধার।

 

 

 

Inform others ?
Show Buttons
Hide Buttons