গণইস্তফা ২২ মন্ত্রীর, মহাবিপদ মধ্যপ্রদেশে

নিউজটাইম ওয়েবডেস্ক : মধ্যপ্রদেশের সরকার কা‌র্যত পড়ে ‌যেতে চলেছে। মঙ্গলবার মধ্যরাতের মহানাটক অন্তত এমনটাই ইঙ্গিত দিচ্ছে >কমলনাথ মন্ত্রিসভার সমস্ত সদস্যই সোমবার রাতে পদত্যাগ করেছেন। মুখ্যমন্ত্রী কমলনাথ সকলের ইস্তফাপত্র গ্রহণ করার কথা স্বীকার করে সংবাদিকদের বলেন, বিজেপিরা চক্রান্ত করে মাফিয়াদের সাহায্যে অচলাবস্থা তৈরি করতে চাইছে তাদের তিনি কোনোভাবেই সফল হতে দেবেন না। তিনি আরও জানান খুব শীঘ্রই নতুন মন্ত্রীসভা গঠন হবে। সূত্রের খবর.,একসাথে ২২জন মন্ত্রী ইস্তফা দেন।

 

এদিন সকাল থেকেই মধ্যপ্রদেশের রাজনৈতিক পরিস্থিতি জটিল হতে থাকে। কংগ্রেসের বিধায়কেরা হঠাৎ করে বেপাত্তা হয়ে যান। এমনকী তাঁরা ফোন ধরাও বন্ধ করে।অতীতেও নানা রাজ্যে একাধিকবার এমন ঘটনা ঘটেছে। কর্ণাটকে সম্প্রতি এমন ঘটনা ঘটে।

এদিন মন্ত্রিসভার সদস্যদের ইস্তফাপত্র গ্রহণের আগে মধ্যপ্রদেশের এই রাজনৈতিক সংকট-মুহূর্তে বন্ধু দিগ্বিজয় সিংয়ের সঙ্গে দীর্ঘক্ষণ আলোচনা করেন। কমলনাথের হাতে ১২০ । তবে পরিস্থিতি যা, তাতে যে কোনও সময় যে সরকার উলটে যেতে পারে, তা প্রবীণ কমলনাথের অজানা নয়।

সু‌যোগের অপেক্ষায় ছিল বিজেপি। পরিস্থিতি জটিল হয়ে ওঠায়, তড়িঘড়ি দলের বৈঠক ডাকে গেরুয়া শিবির। দিল্লিতে অমিত শাহের বাসভবনে সরকার গড়ার আশার আলো দেখতেই হাজির হয়েছেন বিজেপির প্রাক্তন বিধায়ক শিবরাজ সিং চৌহান, মোনেরার সাংসদ নরেন্দ্র সিং তোমার।
সূত্রের খবর, বিজেপি ক্ষমতা প্রদর্শনের জন্য মঙ্গলবার সন্ধ্যায় একটি সভা ডেকেছে। সেখানে সমস্ত দলীয় বিধায়ককে উপস্থিত থাকতে বলা হয়েছে। যদিও সরকার গঠনের জন্য বিজেপি অনাস্থা প্রস্তাব আনবে কি না, তা বিজেপি খোলসা করে জানায়নি।

এখন দেখার সরকার ধরে রাখতে মঙ্গলবার কমলনাথ কী পদক্ষেপ করেন।

Inform others ?
Show Buttons
Hide Buttons