কেন্দ্রের বিরোধিতা সত্ত্বেও সেনায় মহিলাদের কম্যান্ডের পক্ষে ঐতিহাসিক রায় সুপ্রিম কোর্টের

নিউজটাইম ওয়েবডেস্ক : সম্প্রতি কম্যান্ডিং অফিসারের পদের জন্য দাবি জানিয়ে আবেদন করেছিলেন কয়েকজন মহিলা। সেই আবেদনের ভিত্তিতেই আজ রায়দান করে সুপ্রিম কোর্ট । সুপ্রিম কোর্টের যুগান্তকারী রায়ে সেনাবাহিনীতে কাটলো লিঙ্গবৈষম্য। 14 বছর বা তার বেশি সময় ধরে কর্মরতা মহিলা অফিসারদের জন্য তৈরি করতে হবে স্থায়ী কমিশন। কমান্ডার পদেও মহিলাদের নিয়োগে কোনো বাধা নেই। তিন মাসের মধ্যে তৈরি করতে হবে কমিশন। দিল্লি হাইকোর্টের রায় বহাল রাখল শীর্ষ আদালত।

 

এর আগে এই আবদনের বিরোধিতায় সরকারের তরফে সুপ্রিম কোর্টকে বলা হয়, ভারতীয় সেনাবাহিনীর যে কোনও স্তরেই পুরুষদের আধিপত্য বেশি। এই সব জওয়ানরা সাধারণত গ্রামীন এলাকা থেকে আসেন। সংস্কারবদ্ধ মানসিকতার কারণে কোনও মহিলা কম্যান্ডিং অফিসারকে মেনে নেওয়া তাঁদের পক্ষে সম্ভব নয়। তাছাড়াও অন্য কারণ রয়েছে। কেন্দ্রীয় সরকারের যুক্তি, সেনাবাহিনীর প্রশিক্ষণের সময় অথবা দুর্গম জায়গায় পোস্টিংয়ের সময় যে শারীরিক ও মানসিক দৃঢ়তার দরকার, সেটা মহিলারা পেরে ওঠেন না অনেক সময়েই। তাই কমব্যাট ফোর্সে মহিলাদের না নেওয়াটাই যুক্তিসঙ্গত।

তবে আজ রায়দানের সময় কেন্দ্রে এই যুক্তির কড়া ভাষায় নিন্দা জানায় বিচারপতি ডি ওয়াই চন্দ্রচূড় ও বিচারপতি অজয় রাস্তোগির বেঞ্চ। পাশাপাশি কেন্দ্রের আপত্তি সত্ত্বেও মহিলাদের সেনায় স্থায়ি কমিশনের পক্ষে রায় দেয় সুপ্রিমকোর্ট।

Inform others ?

হয়তো আপনার চোখ এড়িয়ে গেছে !

Show Buttons
Hide Buttons