মিলেছে করোনা ভাইরাসের প্রতিষেধক, দাবি চিকিৎসকদের

নিউজটাইম ওয়েবডেস্ক : বেড়ে চলেছে চিনে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা । মৃতের সংখ্যা সাড়ে তিনশো পেরিয়ে গিয়েছে। সেই পরিস্থিতিতে করোনা ভাইরাস থেকে মুক্তির উপায় বের করার দাবি করেছেন থাইল্যান্ডের চিকিৎসকরা। চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন, চিনের এক মহিলার ওপর ওষুধ প্রয়োগ করে ভাল ফল পাওয়া গিয়েছে।
থাইল্যান্ডের স্বাস্থ্যমন্ত্রকের তরফে দাবি করা হয়েছে, ফ্লু ও এইচআইভির ককটেলে ওই ওষুধ তৈরি করা হয়েছে। অ্যান্টি ফ্লু ওসেলটামিভিরের সঙ্গে অ্যান্টি ভাইরাল লোপিনাভির এবং রিটোনাভির মিশিয়ে এই ওষুধ তৈরি করা হয়েছে।

৭১ বছর বয়সী চিনের এক মহিলা হাসপাতালে ভর্তি। ৪৮ ঘন্টা আগেই তার রক্তে করোনা ভাইরাসের হদিশ মিলেছে। সেই সময় থাই চিকিৎসকরা, সেই ওযুধ প্রয়োগ করেন আক্রান্ত ওই মহিলার দেহে। চিকিৎসক ক্রেংস্যাক অ্যাত্তিপরোয়ানিচ থাইল্যান্ড সরকারের করা সাংবাদিক বৈঠকে বিস্তারিত জানিয়েছেন। ৪৮ ঘন্টার মধ্যেই রোগ মুক্তি ঘটেছে বলে দাবি করেছেন ওই চিকিৎসক।

এখনও পর্যন্ত জাপানে ২০ জনের করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া গিয়েছে। যা দিনের বাইরে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ আক্রান্ত বলেই জামা গিয়েছে। এরপরেই রয়েছে থাইল্যান্ড। সেখানে ১৯ জনের শরীরে জীবাণু মিলেছে। যাঁদের মধ্যে ৮ জন বাড়ি ফিরে গিয়েছে। এখনও হাসপাতালে ভর্তি ১১ জন।

সোমবার চিনের ন্যাশনাল হেলথ কমিশন জানিয়েছে মৃতের সংখ্যা ৩৬০। বেশিরভাগ মৃত্যুর ঘটনাই ঘটেছে চিনের হুবেই প্রদেশে। সোমবার জানানো হয়েছে আক্রান্তের সংখ্যা ১৭,২০০ জন। নতুন করে ২,৮২৯ জন আক্রান্ত হয়েছেন সে দেশে।

Inform others ?
Show Buttons
Hide Buttons