প্রিয় সুশান্ত কে নিয়ে আবেগঘণ পোস্টের পর সোশ্যাল মিডিয়া,সংবাদমাধ্যমের বিরুদ্ধে সরব কৃতী

নিউজটাইম ওয়েবডেস্ক : সুশান্ত সিংয়ের শেষকৃত্যের  দিন সংবাদমাধ্যমের ভূমিকা নিয়ে ক্ষোভে ফেটে পড়লেন কৃতী শ্যানন। সোমবার বলিউডের তরফে গুটিকতক তারকা ভিলেপার্লে শ্মশানে উপস্থিত ছিলেন। তাঁদের মধ্যে অন্যতম কৃতী শ্যানন। সেদিন কৃতীর গাড়ির কাঁচে ধাক্কা দিয়ে উইন্ডো নামাতে অনুরোধ করেছিলেন চিত্র সাংবাদিকরা। এতেই পিরতিবাদ জানিয়েছেন এই তরুণ অভিনেত্রীর। কটাক্ষের সুরে সুশান্ত সিংয়ের রবতা ছবির এই সহ-অভিনেত্রী ইন্সটাগ্রামে লেখেন, “গাড়ির কাঁচে ধাক্কা দিয়ে বলা ম্যাডাম একটু উইন্ডো নীচে করুন, পরিষ্কার ছবি তুলি। শেষকৃত্যে আসা একজনের স্পষ্ট ছবি নিতে এত উদ্যোগ! শেষকৃত্য সম্পূর্ণ ব্যক্তিগত। আসুন আমাদের পেশার আগে মানবতা প্রতিষ্ঠিত করি।” সাংবাদিকদের নিয়ম মেনে চলার পরামর্শ দিয়ে কৃতী লেখেন, “একজনের বোঝা উচিত কোনটা গ্রহণযোগ্য। সংবাদমাধ্যমের আওতাভুক্ত কোনটা! এবং কোনটা সংবাদমাধ্যমের আওতাধীন নয়। বাঁচান এবং বাঁচতে দিন।”

সংবাদমাধ্যমের প্রতি আক্রমণাত্মক কৃতীর আরও মন্তব্য, “প্রমাণ থাকলে নাম করে লিখুন। নয়তো লিখবেন না। আপনার লেখেন সূত্রের খবর আর তাকে সাংবাদিকতা বলেন।” এদিকে সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর দিন কোনও শোকবার্তা ছিল না কৃতীর তরফে। সে নিয়ে সমালোচনার মুখে পড়েন এই অভিনেত্রী। সে বিষয়ে এদিন সরব হয়ে কৃতী লেখেন, “সবচেয়ে দূষিত আর ভুয়ো জায়গা সোশাল মিডিয়া। আপনি কারও মৃত্যুর পর রিপ লিখছেন না মানে আপনি শোকাহত নয়। দেখে মনে হয় সোশাল মিডিয়া সত্যি আর বাস্তবের দুনিয়াটা মিথ্যা।”

এর আগে প্রিয় সুশান্ত কে মনে করে হৃদয়বিদারী পোস্ট দিয়ে দেশবাসীর মন নাড়িয়ে দিয়েছিল কৃতী।

ইতিমধ্যে মহারাষ্ট্রের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অনিল দেশমুখ বলেছেন, পেশাদার কোনও বাধ্যবাধকতা সুশান্ত সিং রাজপুতের আত্মহত্যায় প্ররোচনা দিয়েছে কিনা খতিয়ে দেখবে পুলিশ।

 

Inform others ?
Show Buttons
Hide Buttons