অমাবস্যায় ক্ষমতা বাড়ে ভাইরাসের! ট্যুইটের জেরে সমালোচনার শিকার বিগ বি

নিউজটাইম ওয়েবডেস্ক : মারণ ভাইরাসের কামড়ে ঘরবন্দি গোটা দেশের মানুষ। সংক্রমণ যাতে দ্রুত ছড়িয়ে না পড়ে তাই প্রশাসনের তরফেও নেওয়া হয়েছে একাধিক পদক্ষেপ। দিনটা ২২ মার্চ। ঘড়ির কাটায় তখন ঠিক বিকেল ৫ টা। জনতা কর্ফুর পর প্রধানমন্ত্রীর ডাকে সাড়া বিয়ে জরুরি পরিষেবা প্রদানকারীদের মনের জোর বাড়াতে শাখ, কাঁসর,ঘণ্টা বাজিয়ে কিংবা হাতে তালি দিতে দেখা যায় সাধারণ মানুষ থেকে শুরু করে সকলকেই। এদিন সেদলে নাম লিখিয়েছিলেন সেলেবরাও।

ভিকি কৌশল, শাহরুখ খানদের পাশাপাশি এদিন বাড়ির ছাদে উঠে হাততালি দিতে দেখা যায় অমিতাভ বচ্চনকে। তিনি একা নন এদিন তাঁর সাথে ছিলেন পরিবারের আরও তিন সদস্য তথা ছেলে অভিষেক, বউমা ঐশ্বর্য এবং মেয়ে শ্বেতা। হাততালি দিয়ে চিকিৎসক থেকে শুরু করে জরুরি পরিষেবাপ্রদানকারী সকলকে ধন্যবাদ জানান তাঁরা। এর পরেই সোমবার নিজের ট্যুইটার হ্যান্ডেলে একটি ট্যুইট করেন অমিতাভ।

সেখানে তিনি লেখেন, ‘২২ মার্চ, বিকেল ৫টা, অমাবস্যা, চলতি মাসের সবচেয়ে কালো দিন এটি। এই দিন ভাইরাস, ব্যাকটেরিয়া, ক্ষতিকারক শক্তিগুলির  ক্ষমতা বেড়ে যায়। হাততালি, শঙ্খধ্বনি, কাঁসর ও ঘণ্টা এসব দমিয়ে ফেলতে পারে। চাঁদ নতুন নক্ষত্র রেবতীর কাছে যায়। এতে শরীরে রক্তসঞ্চালনও বাড়ে।’ তাঁর এই লেখার সাথে নিজের একটি ছবিও পোস্ট করেন তিনি।

বিগ বি-র করা এই ট্যুইট প্রকাশ্যে আসতেই ট্রোলের শিকার হন অভিনেতা। বর্তমান দিনে দাঁড়িয়ে কিভাবে এমন কুসংস্কার এবং অবিজ্ঞানসম্মত কথা বললেন অমিতাভ তা নিয়েই উঠছে প্রশ্ন। নেটিজেনদের একাংশের মতে, দেশের এই পরিস্থিতিতে সাধারণ মানুষ থেকে শুরু করে চিকিৎসক ও চিকিৎসা কর্মীদের মনোবল বাড়াতে তাঁর আরও দায়িত্বশীল হয়ে কথা বলা উচিত। যদিও এই সমালোচনার মুখে পড়েও কোন ভাবে মুখ খোলেননি অভিনেতা। তবে কটাক্ষের মুখে পড়ে শেষ পর্যন্ত নিজের ট্যুইটটি মুছে ফেলেন বিগ বি।

 

 

Inform others ?
Show Buttons
Hide Buttons