Notice: Undefined offset: 0 in /home4/newstime/public_html/wp-content/themes/newsium/functions.php on line 406

দিঘার সমুদ্র সৈকতে অবাক কাণ্ড! ঢেউয়ের সাথে ভাসছে বরফের মতো ফেনা

নিউজটাইম ওয়েবডেস্ক : শুক্রবার রাতের জোয়ারে সমুদ্রের বদলে হঠাৎই সমুদ্রের নতুন চরিত্রে তাজ্জব হয়ে যায় দিঘার সমুদ্র পাড়ের মানুষ। ঢেউয়ের সঙ্গে ভেসে আসা ফেনার স্তুপ জমতে থাকে বেলাভূমিতে। আপাতদৃষ্টিতে মনে হয় বরফের স্তুপ। ফেনার টুকরো উড়তে থাকে চারিদিকে।

স্থানীয় এক বাসিন্দা বলেন, সন্ধে থেকেই সমুদ্রের গর্জনের শব্দ অন্যরকম শোনায় । পাড়ে এসে দেখা যায় অবাক করা ফেনার রাশি। ঢেউয়ের সঙ্গে ফেনা আসে। জল নেমে গেলে আবার ফেনা চলে যায়। কিন্তু এই ফেনা থোকা থোকা হয়ে পাড়ে থেকে যাচ্ছিল। যা দেখে বরফ জমছে বলে মনে হয়। গার্ডওয়াল পর্যন্ত ফেনা জমে সাদা হয়ে যায়। পেঁজা তুলোর মতো কিছু কুচি উড়েও বেড়ায়।

সমুদ্রের ধারে যাঁদের বাসস্থান, সমুদ্রের চরিত্র বদলের এমন নানা ঘটনার সাক্ষী থাকেন তাঁরা। শুক্রবার রাতের ঘটনায় তাঁরা অবাক। ইতিমধ্যেই ঘূর্ণিঝড় আমফান আছড়ে পড়বে বলে খবর পাওয়া গেছে। এমন অবাক করা ফেনা তারই প্রভাব কি না তা নিয়ে জল্পনা শুরু হয়ে গেছে সৈকতনগরীতে।

সমুদ্র বিজ্ঞানীরা বলছেন, সমুদ্রের দ্রবীভূত জৈব পদার্থগুলির মন্থনে সমুদ্রের ফেনা তৈরি হয়। ঝড়ো হাওয়ায় জলের ঢেউ উথালপাথাল হয়ে মন্থনের ফলে ফেনা হতে পারে। এই ফেনার স্থায়িত্বও বেশি হতে পারে।

দিঘা সামুদ্রিক অ্যাকোয়ারিয়ামের বিজ্ঞানী শ্রীনিবাসন বালাকৃষ্ণান বলেন, ‘‘সমুদ্রে মৎসজীবীদের ট্রলার নেই। জাহাজও কম চলছে। এই সময় সমুদ্রের জলে দ্রবীভূত লবণ, প্রোটিন, চর্বি, মৃত শৈবাল এবং অন্যান্য পদার্থ যা থেকে দূষণ ছড়ায়, তা অনেকটাই পরিষ্কার হয়ে গেছে। এই কারণেও ফেনা হতে পারে। এই ফেনার বিষয়ে আরও পরীক্ষা নিরীক্ষা দরকার। সে কাজই চলছে।’’

 

 

Inform others ?
Show Buttons
Hide Buttons