চতুর্থীর চেনা ভিড়ে ঘাটতি, আশার আলো দেখছে পুলিশ

নিউজটাইম ওয়েবডেস্ক : নো এন্ট্রি পুজো মণ্ডপে, নির্দেশ হাইকোর্টের। ভিড়ে না যাওয়ার পরামর্শ দিচ্ছেন চিকিৎসকরা। এদিকে, গত কয়েকদিন ধরেই রাজ্যের করোনা গ্রাফ ঊর্ধ্বমুখী। এই পরিস্থিতিতে একেবারে ভিন্ন ছবি চতুর্থীর রাতের। অন্যান্যবার এ দিনে ভিড় উপচে পড়ে মণ্ডপে মণ্ডপে। কিন্তু মঙ্গলবার রাতে বিভিন্ন বিখ্যাত মণ্ডপের সামনেই চেনা ভিড় উধাও। গুনতিতে দর্শনার্থীদের থেকে যেন পুলিশ, স্বেচ্ছাসেবকদের মাথা বেশি। অচেনা চতুর্থীর ছবি স্বস্থিদায়ক বলেই দাবি পুলিশের।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক পুলইস অভিসারের কথায়, ‘কোর্টের নির্দেশ মেনে মাস্ক বিতরণ করা হচ্ছে ও সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে সতর্ক করা হচ্ছে। এই ধারা বজায় থাকলে আমাদের বিধি মেনে ভিড় নিয়ন্ত্রণ সহজ হবে।’

গত সোমবারই দুর্গা পুজোর গাইড ম্যাপ প্রকাশ করেছেন কলকাতার নগরপাল অনুজ শর্মা। করোনা বিধি বলবৎ, মাস্ক বিতরণ ও সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে মানুষকে সচেতন করছে পুলিশ।

পরিস্থিতি আলাদা। মণ্ডপে বেশিরভাগই পুজোতেই প্রবেশ করতে পারছেন না দর্শনার্থীরা। অনেক জায়গায়া আবার মণ্ডপ দেখা গেলেও প্রতিমার পুরোটা দেখা যাচ্ছে না। আক্ষেপ থাকলেও নিউ নর্মালে এটাই দস্তুর বলে মেনে নিচ্ছেন মানুষ। বেশ কয়েকটি মণ্ডপের গায়ে বিধি মেনে নো এন্ট্রি ঝোলানো হয়েছে। পুলিশ মনে করছে, পুজোর পাঁচ দিন চতুর্থীর থেকে বেশি হয়তো ভিড় হবে, কিন্তু আগের মত নয়।

Inform others ?
Show Buttons
Hide Buttons