গোলি মারো স্লোগানের অভি‌যোগে ধৃত আরও এক

নিউজটাইম ওয়েবডেস্ক : রবিবার কলকাতায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সভা চলাকালীন একদল বিজেপি সমর্থক অনতিদুরে, এসপ্লানেডের কাছে দিল্লিতে কুখ্যাত দেশকে গদ্দারোঁকো গোলি মারো স্লোগান দেন। তাঁদের মধ্যে ৩ জন ধ্রুব বসু, পঙ্কজ প্রসাদ, ও সুরেন্দ্র কুমারকে গ্রেপ্তার করে নিউ মার্কেট থানার পুলিশ। আজ আরও এক বিজেপি নেতা সুজিত বরুয়াকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এখন ধৃতের সংখ্যা বেড়ে ৪।

পুলিশ সুত্রে জানা ‌যাচ্ছে, ফেসবুক ভিডিও থেকে শনাক্ত করা হয় সুজিতকে। এছাড়াও ২৫ জনকে চিহ্নিত করা হয়েছে। ধৃতদের মধ্যে সুরেন্দ্রকে রবিবার ২টো ৩০ মিনিট নাগাদ তাঁর বাড়ি থেকে, ধ্রুব বসুকে সোমবার ভোর ৪টে নাগাদ তাঁর বাড়ি থেকে এবং পঙ্কজকে ঐ দিনই কালীঘাট এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়। এদের মধ্যে ব্যাঙ্কশাল কোর্টে জামিন পান ধ্রুব বসু। বাকি দুজনের হাজতের নির্দেশ দিয়েছে আদালত।

ধৃত ৩ জনের আইনজীবির দাবি ‌যে স্লোগান দেওয়ার জন্য গ্রেফতার কার হয়েছে, তাতে কোনোরকম সাম্প্রদায়িক উস্কানি নেই। দেশের গদ্দার কোনো জাতি বা ধর্মিয় সম্প্রদায়কে উদ্দেশ্য করে বলা হয়নি। অথচ এদের বিরুদ্ধে ১৫৩এ ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে তা কোনো বিশেষ সম্প্রদায়ের বিরুদ্ধে উস্কানি মূলক বার্তা ছড়ালে গ্রেফতার করা ‌যায়। তাঁর মতে, তাঁর মক্কেলরা আদতে একটি শান্তিপূর্ণ মিছিল করছিল, কোনোরকম উস্কানিমূলক বার্তা এখানে দেওয়া হয়নি।

রবিবার বিজেপির মিছিলে গোলি মারো স্লোগানের কঠোর বিরোধিতা করে রাজ্য প্রশাসন। সোমবার নেতাজী ইন্ডোরের সভামঞ্চ থেকে এই উস্কানিমূলক মন্তব্য নিয়ে কড়া বার্তা দেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এবিষয়ে একই সুরে কথা বলেছেন নগরপাল অনুজ শর্মা। তিনি জানান শহর জুড়ে সমস্ত থানার ওসিদের নির্দেশ দেওয়া আছে, কোনোরকম উস্কানিমূলক মন্তব্য বা শান্তিভঙ্গের চেষ্টা কড়া হাতে দমন করতে হবে।        

Inform others ?
Show Buttons
Hide Buttons